নিজস্ব প্রতিবেদক | সর্বশেষ আপডেট: শনিবার, 28th ডিসে., 2019

‘সোজা কথা ইসিকে সৎ-সুস্থ হতে হবে’

Share This
Tags
Print Friendly
43927D3F-4341-4311-B46B-2D6428ED73F0গণফোরাম সভাপতি ও ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ড. কামাল হোসেন নির্বাচন ব্যবস্থা নিয়ে প্রশ্ন তুলে বলেন, দেশে সত্যিকার অর্থে নির্বাচন করতে হলে নিরপেক্ষ নির্বাচন কমিশন গঠন করতে হবে।
শনিবার (২৮ ডিসেম্বর) রাজধানীর মহানগর নাট্যমঞ্চে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল জাসদ(রব) এর কেন্দ্রীয় কাউন্সিলে এ কথা বলেন তিনি।
জনগণের ভোটাধিকার ফিরিয়ে আনা ও সরকারবিরোধী আন্দোলনের জন্য বৃহৎ জাতীয় ঐক্য গড়ে তোলার প্রতি গুরুত্ব আরোপ করেন ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ এ নেতা।
ড. কামাল বলেন, নির্বাচন নির্বাচন নির্বাচন যেন তারা মজা পেয়ে গেছেন। কোনো কিছু জিনিসকে নির্বাচন বললেই তারপর ঘোষণা দিয়ে দিলেই মানুষকে বলা যায় হ্যাঁ এইতো বৈধতা অর্জন করেছি নির্বাচিত অমুক, নির্বাচিত তমুক। কিন্তু দেশের মানুষতো অন্ধ না। সোজাকথা নির্বাচন কমিশনকে (ইসি) হতে হবে সৎ ও সুস্থ।
সরকার নির্বাচন ব্যবস্থা ধ্বংস করে দিয়েছে অভিযোগ করে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নেতারা দাবি করেন, বর্তমান কমিশনের সুষ্ঠু নির্বাচন করার ক্ষমতা নেই।
সম্মেলনে বক্তারা আরো বলেন, বৃহত্তর জাতীয় ঐক্য গড়ে উঠলে বর্তমান সরকার ক্ষমতায় টিকতে পারবে না। তাদের বক্তব্য উঠে আসে সরকারের নানা ব্যর্থতা আর অনিয়মের কথা।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, সরকারের ভোট ডাকাতির জন্য জনগণের ভোটাধিকার ফিরিয়ে দিতে ব্যর্থ হয়েছে ঐক্যফ্রন্ট।
ফখরুল বলেন, মুক্তিযুদ্ধের সময় আমরা সংবিধানের যে শাসনতন্ত্র চিন্তা করেছিলাম, সে চেতনাকে সম্পূর্ণরূপে ধ্বংস করে দিয়ে একেবারে স্বৈরতান্ত্রিক, একনায়কতান্ত্রিক একটা রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা করেছে সরকার। এ দেশের মানুষ নির্বাচনের মধ্য দিয়েই ক্ষমতার পরিবর্তন চায়, করে এসেছে, আজকে সেই নিবার্চন ব্যবস্থা একেবারে ধ্বংস করে দিয়েছে তারা। আজকে এ নির্বাচন কমিশনের একজন বলছে, এ নির্বাচন কমিশন সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচন করার যোগ্য নয়। কিন্তু তারা নির্বাচন দিচ্ছে, একটার পর একটা এটাই তাদের চরিত্র।